মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরাবর সদ্য নিয়োগ প্রাপ্ত প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক পদে পদায়ন বঞ্চিত শিক্ষকদের খোলা চিঠি

0
225

বরাবর
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী

বিষয়ঃ স্থগিত জেলাসমূহের দ্রুত পদায়নের আবেদন।

জনাব,

সবিনয় বিনীত নিবেদন এই যে, আমরা সদ্য উত্তীর্ণ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ-২০১৮ এর পদায়নের দ্বারপ্রান্তে দাড়িয়ে থাকা নিয়োগ
বঞ্চিত অসংখ্য শিক্ষকবৃন্দ। ২৪শে ডিসেম্বর ২০১৯ ইং ১৮১৪৭ জন প্রার্থী প্রাথমিক শিক্ষক হিসেবে চূড়ান্তভাবে উত্তীর্ণ হই।গত ১৬ ই ফেব্রুয়ারি ২০২০ ইং আমাদের ৬১ জেলার মোট ১৮১৪৭ জন শিক্ষকদের একসাথে জয়েন এবং পদায়নের কথা থাকলেও মাত্র ২১জেলার শিক্ষকরা নিয়োগ পেয়েছে এবং ৪০ জেলার হাজার হাজার নিয়োগপত্র হাতে পাওয়া শিক্ষকরা নিয়োগ পায়নি। কেন যথাসময়ে নিয়োগ
পায়নি সেটার কারণ হয়তো আপনার অজানা নয়। কোন নিয়োগের বিরুদ্ধে রীট করার অধিকার হয়তো সাধারণ মানুষকে আদালত দিয়েছে কিন্তু অহেতুক,
রীট ব্যবসায়ীদের প্রবঞ্চনায় পড়ে কিংবা সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট করতে কেউ বা কাহারা রীট করলে তার জন্য হাজার হাজার চাকরি পাওয়া শিক্ষকগুলো অনিশ্চয়তায় দিন কাটাবে?প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তর বুয়েটের সাহায্যে কম্পিটারের মাধ্যমে স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতিতে সকল কোটা অনুসরণ করেই নিয়োগ দিয়েছে।প্রাথমিক ও গণশিক্ষা অধিদপ্তর বুয়েটেরসাহায্যে

কম্পিটারের মাধ্যমে স্বয়ংক্রিয় পদ্ধতিতে সকল কোটা অনুসরণ করেই নিয়োগ দিয়েছে।

অধিদপ্তর ইতঃপূর্বে তাদের কোটা অনুসরণ করে নিয়োগের ব্যাখ্যা তাদের ওয়েবসাইডে দিয়েছে।
অহেতুক খামখেয়ালি রীট গ্রহণ করে আমাদের সরকারি চাকরি পাওয়ার পরেও আমাদের বেকার বানিয়ে রাখার অধিকার আদালতের নেই।

অতএব, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নিকট আমার আকুল আবেদন, ৪০ টি স্থগিত জেলার চূড়ান্তভাবে উত্তীর্ণ নিয়োগ বঞ্চিত হাজার হাজার শিক্ষকদের অনতিবিলম্বে নিয়োগদানে আদালতকে তাগিদ দিতে জোরালো অনুরোধ জানাচ্ছি।

নিবেদক
শিক্ষকবৃন্দ

মন্তব্য লিখুন

Please enter your comment!
Please enter your name here